দ্য পিপল ডেস্কঃ পছন্দের খাবারের উল্লেখ করলেই সবার প্রথমে মনে আসে বিরিয়ানির নাম। তার গন্ধেই যেন আকুলি বিকুলি করে ওঠে মন।

চিকেন, মটন হোক বা আলু, যে রূপে বিরিয়ানি ধরা দেবে সেই রূপেই যেন সে অমৃত। সে কারণেই বিরিয়ানি যেন তার লাভারদের হৃদয়ে থাকে।

সেকারণেই উত্সব হোক সাধারণ দিন বিশাল বিরিয়ানির হাঁড়ির সামনে ভিড় আছেই।

কিন্তু কখনও লক্ষ করে দেখেছেন কি বিরিয়ানির বিশাল বড় বড় হাঁড়িগুলিতে লাল কাপড় জড়ানো থাকে?

কখনও ভেবে দেখেছেন কেন অন্য কোনও রঙের কাপড় নয়, শুধু মাত্র লাল শলু কাপড় কেন জড়ানো হয় বিরিয়ানির হাঁড়িতে?

জানা যায়, মোগল সম্রাট হুমায়ূনের সময়ে খাদ্য পরিবেশনের এক বিশেষ রীতি প্রচলিক ছিল। পাকশালা থেকে কিছু খাবার আনা হত রুপোলি পাত্রে, কিছু খাবার আনা হত চিনা মাটির পাত্রে।

কিন্তু দুই ধরনের পাত্রের তফাত্ বোঝানের জন্য রুপোলি পাত্র ঢাকা হত লাল শালুর কাপড়ে এবং চিনা মাটির পাত্র ঢাকা হত সাদা কাপড়ে।

মোগল রাজ পরিবারের পরবর্তী সময়েও এই রীতি পালন করা হত। আরও পরে লখনউয়ের নবাবরাও এই রীতি পালন করতেন। সেখান থেকেই বিরিয়ানির হাঁড়ি লাল শালুতে ঢেকে রাখার রীতি চলে আসছে বলে মনে করা হয়।

আবার অনেকে মনে করেন, এই ধারণার সত্যতা নেই। আসলে লাল রঙ খুবই আকর্ষণীয়। যে কোনও বয়সের মানুষকে লাল রঙ আকৃষ্ট করতে পারে।

ক্রেতাদের আকৃষ্ট করতেই বিরিয়ানির হাঁড়ি লাল কাপড়ে মুড়ে রাখা হয় বলে মত অনেকের।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here