রাফালে ফাইল ছবি

দ্য পিপল ডেস্কঃ দীর্ঘ প্রতীক্ষার অবসান ঘটিয়ে আজ বিকেলের দিকে ভারতের মাটি ছোঁবে পাঁচটি ফরাসি রাফাল।

ফ্রান্স ও ভারতের চুক্তির চার বছর পর বুধবার প্রথ পর্বে পাঁচটি রাফালকে ভারতে পাঠানো হচ্ছে। সোমবার ফ্রান্স থেকে ভারতে উদ্দ্যেশ্যে রওনা দেয় এই পাঁচটি রাফাল।

প্রায় ৭ হাজার কিলোমিটার পথ অতিক্রম করে অবশেষে বুধবার বিকেলে হরিয়ানার আম্বালায় অবতরণ করবে রাফালগুলি।

পাঁচটি ফরাসি রাফালকে অভ্যর্থনা জানানোর জন্য সরকারি তরফে নেওয়া হয়েছে কড়া প্রস্তুতি। অবতরণের বেশ কিছু জায়গায় জারি হয়েছে ১৪৪ ধারা।

পাশাপাশি ওই এলাকার গ্রামবাসীদেরও ওই সময় ছাদে উঠতে বারণ করে দেওয়া হয়েছে। ড্রোন ওড়ানো, ছবি ও ভিডিও রেকর্ডিং করাও বারণ করা হয়েছে।

আম্বালার ওই বায়ুসেনা ঘাঁটিতে একসঙ্গে চার জনের বেশি যাতে মানুষ জমায়েত করতে না পারে সেইদিকেও কড়া নজর রাখা হয়েছে।

এছাড়া আম্বালার স্থানীয় এক বিধায়কের নির্দেশ অনুযায়ী গ্রামবাসীদের সহযোগিতায় মোমবাতি জ্বালিয়ে রাফালগুলিকে অভ্যর্থনা জানানোর কথা চলছে।

এদিন বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকছেন বায়ুসেনা প্রধান আর.কে.এস ভাদৌরিয়া। তাঁর উপস্থিতিতেই জানানো হবে ওয়াটার স্যালুট।

প্রসঙ্গত, ভারত ও ফ্রান্সের চুক্তি অনুযায়ী মোট ৩৬ টি যুদ্ধ বিমান হাতে পাবে ভারত। সেখান থেকে আজ প্রথম পর্বে পাঁচটি পাঠানো হল।

৩৬ টি রাফালের জন্য ৩৬ টি বায়ুসেনা পাইলট লাগবে, তাদের প্রশিক্ষণের জন্য ফ্রান্সে পাঠানো হবে বলে জানা গিয়েছে।

১৫০ কিমি দূরে থাকা শত্রুপক্ষের যে কোনও যুদ্ধবিমানকে এক মুহূর্তের মধ্যে ধ্বংস করে দিতে পারবে এই রাফালগুলি।

উল্লেখ্য, এর আগে ২০০৭ সালে ইউপিএ সরকারের আমলে ফ্রান্স থেকে ১২৬ টি রাফাল কেনার চুক্তি হয়েছিল। কিন্তু নরেন্দ্র মোদি ক্ষমতায় আসার পর রদবদল হয় সেই চুক্তির।

৫৯ হাজার কোটি টাকা চুক্তির সাপেক্ষে ৩৬ টি রাফাল কেনার চুক্তি সাক্ষরিত হয়।

সূত্রের খবর, ভারতে কোভিড ১৯ কে দমন করতে ওই রাফালগুলি নিয়ে আসছে ৭০ টি ভেন্টিলেটর ও ১ লক্ষ টেস্ট কিট।

এছাড়াও ১০ জন স্বাস্থ্যকর্মী ও চিকিৎসকের একটি দলও রয়েছে তার মধ্যে।