দ্য পিপল ডেস্কঃ বিতর্কিত রাষ্ট্র নেতা তিনি। ন্যাটো সদস্য হয়েও রাশিয়া থেকে ক্ষেপণাস্ত্র কিনে আমেরিকার বিরাগভাজন হয়েছেন। তবুও চুক্তি থেকে সরে আসেননি। তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েপ এরদোগানের এবার অন্য নজির। বৃক্ষরোপণের জন্য সরকারি ছুটি ঘোষণা করতে যাচ্ছেন তিনি। এরই মাঝে বৃক্ষরোপণের মতো পদক্ষেপ নিয়ে কি যুদ্ধ বিরোধী বার্তা দিলেন প্রেসিডেন্ট এরদোগান ? উঠছে এমনই প্রশ্ন।

এর আগে ভুটানের মতো ছোট্ট দেশ বৃক্ষ রোপণে সরকারি ভূমিকায় নজির তৈরি করেছে। বিশুদ্ধ অক্সিজেন ও কার্বন কম নির্গত করার দেশ হিসেবে তাদের স্বীকৃতি মিলেছে বিশ্বজুড়ে।

দেশেরই এক যুবকের টুইট তুরস্কের প্রেসিডেন্টকে নাড়া দিয়েছে। বিশ্বের অন্যতম প্রাচীন সভ্যতার দেশকে সবুজে মুড়ে দিতে টুইট করেন তুর্কি যুবক এনিস সাহিন। তিনি লিখেছেন-চমৎকার একটি আইডিয়া পেয়েছি। মুসলিম প্রধান দেশ হিসেবে আমরা ঈদুল ফিতর ও ঈদুল আজহা-তে সরকারি ছুটি পাই। গাছ লাগানোর জন্য একটি সরকারি ছুটি হলে কেমন হয়? আসুন আমরা দেশের ৮ কোটি ২০ লাখ মানুষ এক সঙ্গে ওই দিনটিতে গাছ লাগাই। পরবর্তী প্রজন্মের জন্য আমরা একটি সবুজ পৃথিবী রেখে যেতে চাই।

সেই টুইট ভাইরাল হয়। কয়েক ঘণ্টায় সাড়ে ৫ লক্ষ লাইক ও কমেন্ট পড়ে। এরপর সেটি নজরে পড়ে প্রেসিডেন্ট এরদোগানের। তিনি রিপ্লাই দিয়ে বৃক্ষরোপণের জন্য ছুটি ঘোষণার কথা জানান। প্রেসিডেন্ট এরদোগান লিখেছেন-চমৎকার একটি আইডিয়া দিয়েছেন সাহিন। এ জন্য আপনাকে অশেষ ধন্যবাদ। শিগগির আমি আমার কর্মকর্তাদের সঙ্গে বসে গাছ লাগানোর জন্য একটি ছুটির দিন ঘোষণা করবো।

পশ্চিম এশিয়ার একাধিক সংবাদপত্রের ওয়েব সংস্করণ ও আন্তর্জাতিক সংবাদ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়েছে তুরস্কের প্রেসিডেন্টের সেই রি টুইটে বৃক্ষরোপণের জন্য সরকারি ছুটির ঘোষণা বার্তা। এতেই আপ্লুত সাহিন।

তুরস্ক শুকনো আবহাওয়ার দেশ। তার ভৌগোলিক অবস্থান খুবই গুরুত্বপূর্ণ। এশিয়া ও ইউরোপে মিশে রয়েছে দেশটি। অন্যতম শহর ইস্তানবুলের মাঝখান দিয়ে বিখ্যাত বসফরসাস প্রণালী চলে গিয়েছে। এই জলধারার দুই দিকে দুই মহাদেশ। এই কারণে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের অন্যতম স্ট্রাটেজিক পয়েন্ট হল তুরস্ক। তাই তাদের ন্যাটো সদস্যের অন্যতম করা হয়েছে। এর পরেও তুরস্কের সঙ্গে আমেরিকার দ্বন্দ্বের বড় কারণ হল সাম্প্রতিক রুশ অস্ত্র সম্ভার কেনার চুক্তি। রাশিয়া থেকে সেই চালান পৌঁছে যাচ্ছে তুরস্কে। সেই কারণে পশ্চিম এশিয়ার রাজনৈতিক সংকট আরও জটিল হয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here