দ্য পিপল ডেস্কঃ বুধবার বিধানসভায় সিঙ্গুর নিয়ে প্রশ্নও তোলেন বাম বিধায়ক সুজন চক্রবর্তী। ২০১৭-১৮ অর্থবর্ষে সিঙ্গুরের জমিতে কত পরিমান চাষ তা মুখ্যমন্ত্রীর কাছে জানতে চান তিনি।

উত্তরে কৃষিমন্ত্রী আশীষ ব্যানার্জী বলেন, “সিঙ্গুরে ধান,গম,আলু,কলা,ভুট্টা এসব উৎপাদিত হয়েছে। সিঙ্গুরের কোনো জমি পতিত হয়নি। যারা চাষ করতে চাইছেন, তারা চাষ করতে পারছেন।”

সুজন বাবুর প্রশ্নের উত্তরে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, “শিল্প হচ্ছে, চাষও হচ্ছে। শুধু চিৎকার করলে হয় না। সিঙ্গুরে জমি ছিল ৯৭৭ একরের একটু বেশি। ফেরত দিয়েছি ৬৫০ একরের একটু বেশি। এখনও ওখানকার কৃষকদের আর্থিকভাবে সাহায্য করছি। অনেক জমি সয়েল টেস্ট করা হয়েছে। যারা জমি নিয়েছে চাষ করার জন্য ১০ হাজার টাকা করে দিয়েছি সিঙ্গুরে। কোন কৃষক চাষ করবে কি করবে না, সেটা সেই কৃষকের ব্যাপার। ওর জমিতে ও কি করবে সেটা তো চাষীর নিজের ব্যাপার।”  

এরপরে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হন বাম বিধায়ক। সিঙ্গুরে মাত্র ৫০ একর জমিতে চাষ হচ্ছে বলে জানিয়েছেন তিনি। এদিন বাম পরিষদীয় নেতা প্রশ্নও তোলেন , সরকারের কথামতো ৬৪০ একর জমি যদি চাষিদের চাষ করা করা হয় তবে বাকি ৩৬ শতাংশ জমি কি হল? বাকি কৃষকরা কি অনিচ্ছা প্রকাশ করেছেন? সিঙ্গুরের মাটিতে আন্দোলনের নামে বাংলাকে ধংস করা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন তিনি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here