বহাল তবিয়তে ভারতে চলছে টিকটক

0
93

দ্য পিপল ডেস্কঃ ব্যান হয়ে গিয়েছে । কিন্তু, ভারতে এখনো বহাল তবিয়তে চলছে টিকটক । কয়েকদিন আগেই হাইকোর্টে রায় দিয়েছিল অ্যাপটি বন্ধ করার জন্য । অতঃপর গুগল ইন্ডিয়া প্লে স্টোর থেকে তুলে নেয় অ্যাপটি । তার পাশাপাশি অ্যাপ স্টোর থেকেও তুলে নেওয়া হয় টিকটক । কিন্তু যাদের ফোনে আগে থেকেই ইনস্টল আছে অ্যাপটি । তারা এখনো বহাল তবিয়তে ব্যবহার করছে টিকটক ।   

টিকটক 1
Image Source : odhikarnews

টিকটক -এর কথা

পছন্দের মতো সংলাপ বা গানে লিপিং করা যায় অ্যাপটিতে । বর্তমানে যুব সমাজের বিনোদনের মূল উপজীব্য হয়ে উঠেছে অ্যাপটি । সবই ঠিক ছিল কিন্তু হঠাৎই এই অ্যাপটি যৌন বিনোদনের আখরা হয়ে ওঠে । কার্যত যুবসমাজকে যৌন জ্বরা থেকে মুক্ত করার জন্যই মাদ্রাজ হাইকোর্ট প্রথমবার এই অ্যাপটি ব্যবহারে নিষেধাজ্ঞা জারি করে ।

এরপর ভারতের উচ্চ আদালতও অ্যাপটিকে বন্ধ করার আদেশ দেয় । তাই কথামতো গুগল প্লে স্টোর এবং অ্যাপলের অ্যাপ স্টোর টিকটককে রিমুভ করে দেয় । তবুও রমরমিয়ে চলছে অ্যাপটি ।

টিকটক 2
Image Source : livenewspaper

অ্যাপটি নিষিদ্ধ হওয়ার আগে গোটা দেশে প্রায় ১২ কোটি গ্রাহক টিকটক ব্যবহার করতেন । অ্যাপটি বন্ধ হওয়ার পরেও টিকটক ব্যবহার চলছে ।

টিকটকের ব্যাপারে রায় বেরনোর আগে অ্যাপটি ইনস্টল ছিল যাদের ফোনে । তারা এখনও অ্যাপটি ব্যবহার করে চলেছেন ।

শুধু তাই নয় আগামী তিন বছরে ভারতে ব্যবহৃত ‘টিকটক’এর জন্য ১০০ কোটি খরচ করতে চলেছে সংস্থা । ‘টিকটক’ এর জন্মদাতা বাইটডান্স এর ডিরেক্টর হেলেনা লার্স বলেন, গত কয়েক মাসে কোম্পানি তার বিষয়বস্তুকে নিয়ন্ত্রণ করতে অ্যাপের নিয়মবিধিকে শক্তিশালী করেছে।

তিনি আরও বলেন, “আমরা অবশ্যই বর্তমান ঘটনার জন্য হতাশ । আশা করা যায়, আগামীদিনে সমস্যার সমাধান করব। আমরা আমাদের ভারতীয় ব্যবহারকারীদের কাছে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ। যে কারণে আমরা ভারতে পরবর্তী তিন বছরে ১ বিলিয়ন মার্কিন ডলার বিনিয়োগ করতে চাই,” ঠিক এমনটাই জানা গিয়েছে পিটিআই সূত্রে ।                 

ইতিমধ্যেই অ্যাপেক্স কোর্টে এই মামলা পৌঁছেছে। টিকটক এর আধিকারিকরা জানিয়েছেন দেশে এই অ্যাপের বিশাল জনপ্রিয়তার কথা মাথায় রেখেই ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে ।

কাগজে কলমে আদালতের রায় মানা হলেও এখনও পুরনো গ্রাহকরা এই অ্যাপ ব্যবহার করে চলেছেন। এমনটাই জানিয়েছেন সাইবার সুরক্ষা বিশেষজ্ঞরা ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here