দ্য পিপল ডেস্কঃ সচিন তেন্ডুলকারের মুকুটে জুড়ল নয়া পালক। ২০১৯ আইসিসি হল অফ ফেমে জায়গা পেলেন মাস্টার ব্লাস্টার। তাঁর সঙ্গে নাম জুড়ল দক্ষিণ আফ্রিকার পেস বোলার অ্যালন ডোনাল্ড ও দুবারের বিশ্বকাপজয়ী অস্ট্রেলিয়ান মহিলা ক্রিকেটার ক্যাথরিন ফিটপ্যাট্রিকের। বৃহস্পতিবার আইসিসি বার্ষিক অনুষ্ঠানে পুরষ্কৃত করা হয় তাঁদের।

সচিন তেন্ডুলকারঃ

আমাদের WHATSAPP গ্রুপে যুক্ত হতে ক্লিক করুন: Whatsapp

টেস্ট এবং ওয়ান ডে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে সর্বোচ্চ রান ও সর্বোচ্চ শতরানের অধিকারী হলেন সচিন। টেস্ট ও ওয়ানডে মিলিয়ে মোট ১০০টি শতরানও রয়েছে তাঁর ঝুলিতে। বিশ্ব ক্রিকেটের একজন আইকনিক ব্যাটসম্যান হলেন মাস্টার ব্লাস্টার। তাঁকে নিয়ে মোট ৬জন ভারতীয় খেলোয়াড় এই সম্মান পেয়েছেন।

  আইসিসি নিয়ম অনুযায়ী, আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে কমপক্ষে ৫ বছরের অধীক সময়ে অবসর নিতে হবে। ২০১৩ সালে নভেম্বরে সচিনের ক্রিকেট জীবনের সমাপ্তি ঘটেছিল।

ক্রিকেট কেরিয়ারঃ

  • ২০০টি টেস্ট ম্যাচে খেলে মোট ১৫,৯২১ রান করেন সচিন। তার মধ্যে ৫১টি শতরান ও ৬৮টি অর্ধশতরান করেন তিনি।
  • ৪৬৩টি একদিনের ক্রিকেট খেলে ১৮,৪৬৩ রান করেন ২০১১ বিশ্বকাপজয়ী খেলোয়াড়। এর মধ্যে ৪৯টি শতরান ও ৯৬টি অর্ধশতরান করেন ৪৬ বর্ষীয় খেলোয়াড়।
  • আর্ন্তজাতিক ক্রিকেটে প্রথম ডবল সেঞ্চুরি করেন সচিন তেন্ডুলকার।

অ্যালন ডোনাল্ডঃ

প্রাক্তন সাউথ আফ্রিকান পেসার অ্যালন ডোনাল্ডকেও আইসিসি হল অফ ফেমে সম্মানিত করা হয়। ক্রিকেটে জগতের অন্যতম সেরা ফার্স্ট বোলার ছিলেন তিনি।

প্রথম প্রোটিয়া বোলার হিসেবে ডোনাল্ড ৩০০ উইকেট নিয়েছিলেন। ৭২টি টেস্ট ম্যাচে ৩৩০টি উইকেট নেন তিনি। ১৬৪ একদিনের ম্যাচে ২৭২ উইকেট পেয়েছিলেন লেজেন্ড বোলার।

ক্যাথরিন ফিটপ্যাট্রিকঃ

পাইনর মহিলা ক্রিকেটের পর এবার আইসিসির হল অফ ফেমে নাম জুড়ল  ক্যাথরিন ফিটপ্যাট্রিকের। ১৩টি টেস্ট ম্যাচে মোট ৬০টি উইকেট এবং ১০৯টি ও ডি আই ম্যাচে ১৬০টি প্রাক্তন মহিলা অজি পেসারের ঝুলিতে।