দ্যা পিপল টিভি ডিজিটাল ডেস্কঃ রাতের ভয়ঙ্কর ঠান্ডা বা ভোরের ঘন কুয়াশাকে উপেক্ষা করেই দোমোহনিতে উদ্ধারকাজ চালিয়ে যাচ্ছেন জাতীয় বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনী, বিএসএফ, সশস্ত্র সীমা বল-এর জওয়ানরা। আপাতত ট্রেন থেকে প্রায় সমস্ত যাত্রীদের বের করে নিয়ে আসা হয়েছে। দুমড়ে মুচড়ে যাওয়া এবং লাইনের পাশে উল্টে থাকা ট্রেনের কামরাগুলিকে ক্রেনের সাহায্যে এক এক করে স্থানান্তরিত করার কাজ শুরু করেছে উদ্ধারকারী দল।

Source: Facebook

পাশাপাশি, ট্রেনের কামরার ভিতরে এখনও আর কেউ আটকে আছে কি না, তা ভাল করে খতিয়ে দেখছেন উদ্ধারকারীরা। শুক্রবার ভোরেই দোমোহনির দুর্ঘটনাস্থলে পৌঁছে গিয়েছেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী জন বার্লা। ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে তিনি বলেন, “উদ্ধারকাজ চলছে। কী ভাবে এই দুর্ঘটনা ঘটল, তার তদন্ত করা হবে।”

বৃহস্পতিবার রাতেই মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশে হাওড়া থেকে বিশেষ ট্রেনে দোমোহনীর উদ্দেশে রওনা দিয়েছেন রেলের উচ্চপদস্থ কর্তাসহ রেলমন্ত্রী অশ্বিনী বৈষ্ণব। শুক্রবার সকালেই তাঁর ঘটনাস্থলে পৌঁছে যাওয়ার কথা রয়েছে। তার আগেই এদিন দুর্ঘটনাস্থল পরিদর্শনে এসেছেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বার্লা।

Source: Facebook

বৃহস্পতিবার বিকেল পাঁচটা নাগাদ ময়নাগুড়ির দোমোহনিতে লাইনচ্যুত হয় বিকানের-গুয়াহাটি এক্সপ্রেস। সেই ঘটনায় বৃহস্পতিবার মধ্য রাত পর্যন্ত ৮ জনের নিহত হয়েছেন বলেই খবর পাওয়া গিয়েছে। এই দূর্ঘটনায় আহত হয়েছেন বহু মানুষ। আহতদের উদ্ধার করে অতিদ্রুত বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়েছে।