প্রতীকী ছবি

দ্য পিপল ডেস্ক : লকডাউন, বন্ধু হোক বা আত্মীয় কেউ কারও বাড়িতে যেতে পারছে না। অথচ ঘরে বসে বসে শুধু বোর হতে হচ্ছে।


বন্ধু – বান্ধবের আড্ডা, গল্পে সময় বেশ কাটে। কিন্তু সেখানেই বাদ সাধছে লকডাউন।


তাই পুলিশের চোখ এড়িয়ে প্রিয় বন্ধুকে বাড়িতে আনার অভিনব উপায় বের করল এক বন্ধু।


প্রশাসনের চোখকে ফাঁকি দিতে সুটকেসে ভরে বন্ধুকে বাড়ি আনতে চাইল কর্ণাটকের এক যুবক।


কিন্তু না, পুলিশের চোখকে ফাঁকি দেওয়া কি এতই সহজ? তাও আবার এই লকডাউনের বাজারে?


করোনাকে দমন করতে টানা দুমাস লকডাউন রয়েছে সারা ভারত। বন্ধুদের সঙ্গে দেখা করতে পারছে না কেউই।


এই পরিস্থিতিতে বন্ধুকে সুটকেসে পুরে নিজের বাড়িতে আনার সিদ্ধান্ত নেয় কর্ণাটকের এক যুবক।
ঘটনাটি ঘটেছে কর্ণাটকের মাঙ্গালোর শহরে।


গোটা দেশে শহরের বিভিন্ন রাস্তায় পুলিশি টহলদারি চলছে, চলছে গাড়ির নাকা চেকিং। সেখানেই হাতেনাতে ধরা পড়ে যায় তারা।


ঘটনায় অভিযুক্ত ওই বন্ধু জানিয়েছে, দীর্ঘদিন বাড়িতে থাকতে তার ভালো লাগছিল না। তাই সে তার বন্ধুকে বাড়িতে আনার ব্যবস্থা করেছিল।


পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, পথে তাকে দেখে সন্দেহ হয় পুলিশের । সুটকেস খুলে ভিতরে মানুষ দেখতে পেয়ে আটক করা হয় তাদের।