বৃদ্ধ দম্পতি

দ্য পিপল ডেস্ক : মঙ্গলবার গভীর রাতে দেগঙ্গার কলসুরে অবসরপ্রাপ্ত বৃদ্ধ দম্পতির বাড়িতে হানা দেয় দূষ্কৃতীরা। ঘটনায় আতঙ্ক ছড়িয়েছে এলাকায়।


অবসরপ্রাপ্ত কেন্দ্রীয় সরকারী কর্মচারী বৃদ্ধ অনাদি প্রসাদ চক্রবর্তী (৭৫)এবং তার স্ত্রী কৃষ্ণা চক্রবর্তী (৬৫) দুজনেই থাকেন কলসুরের পাকা বাড়িতে।


এদিন গভীর রাতে ঘরের আলমারি ভাঙার আওয়াজে ঘুম ভেঙে যায় অয়ান্দি বাবুর। উঠে দেখেন এক দূষ্কৃতি আলমারি ও শোকেস ভাঙছে।


বাধা দিতে গেলে দূষ্কৃতিরা হাতে থাকা ধারালো অস্ত্র দিয়ে এলোপাথারি কোপ মারতে থাকে অনাদি বাবুর হাতে।

স্বামীকে বাঁচাতে গেলে কৃষ্ণা দেবীকেও বেধরক মারধর করে গলা টিপে প্রাণে মারার চেষ্টা করে দুষ্কৃতিরা, এমনটাই অভিযোগ করেন বৃদ্ধ দম্পতি।


না পেরে চিৎকার শুরু করতেই স্থানীয় বাসিন্দারা তাদেরকে উদ্ধার করে স্থানীয় চিকিৎসা কেন্দ্রে নিয়ে যান। এরপরই পালিয়ে যায় দুষ্কৃতিরা।


জানা গিয়েছে দুষ্কৃতিরা ওই বাড়ি থেকে দুটি মোবাইল ফোন, টাকা, সোনার গহনা নিয়ে পালিয়ে যায়।


আতঙ্কিত বৃদ্ধের দাবি, দূষ্কৃতিকে তিনি চিনতে পারেন নি।


খোয়া যাওয়া জিনিসপত্র উদ্ধার এবং দোষীর শাস্তির দাবিতে দেগঙ্গা থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন অনাদি বাবু। ঘটনায় নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছেন বৃদ্ধ দম্পতি।