দ্য পিপল ডেস্কঃ জম্মু-কাশ্মীর নিয়ে কেন্দ্রের সিদ্ধান্তের পর থেকেই ভারতের ওপর তোপ দাগতে শুরু করেন পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। এমনকি রাষ্ট্রসংঘের ভিতরেও যুদ্ধের হুঁশিয়ারি দেন তিনি। ভারতীয়দের হাত থেকে কাশ্মীরি দখল করতে বন্দুক তুলে নেওয়ার কথা জানিয়েছেন তিনি।

কিন্তু পাক অধিকৃত কাশ্মীরে গিয়ে অন্য ছবি দেখলেন তিনি। ‘কাশ্মীর বনেগা হিন্দুস্তান’ বললেন পাক অধিকৃত মুজাফরবাদের সাধারণ মানুষ।

পাক অধিকৃত কাশ্মীরের মুজাফরাবাদে সহানুভুতি আদায়ের উদ্দেশ্যে গিয়েছিলেন পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। কিন্তু সেখানে গিয়ে শুনতে হল, “গো ব্যাক নিয়াজি, কাশ্মীর হিন্দুস্থান বনেগা”। সেই ভিডিও ভাইরাল এখন সোশ্যাল দুনিয়ায়। এবার পাক অধিকৃত কাশ্মীর হাতছাড়া হবে এমনটাই মনে করছেন কূটনৈতিক মহল।

চলতি বছরে জম্মু-কাশ্মীর থেকে ৩৭০ ধারা অবলুপ্তির পর থেকে অস্বস্তিতে পড়তে হয়েছে ইমরান সরকারকে। তারপর থেকেই কাশ্মীরের সঙ্গে বিচ্ছিন্ন করা হয়েছে যোগাযোগ ব্যবস্থা। বন্ধ হয়ে গিয়েছে ব্যবসা-বানিজ্য। একাধিকবার জঙ্গি হামলার মাধ্যমে জম্মু-কাশ্মীরের পরিস্থিতি উত্তপ্ত করতে চেয়েছিল ইমরান খান সরকার। কিন্তু সেখানেও ব্যর্থ হন তিনি।

এর আগে একাধিকবার পাক অধিকৃত কাশ্মীরে মানবধিকার লঙ্ঘন করার অভিযোগ উঠেছে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে। জম্মু-কাশ্মীর নিয়ে পাকিস্তানের সঙ্গে কোনরকম আলোচনায় বসবে না ভারত, সাফ জানিয়ে দিয়েছেন প্রতিরক্ষা মন্ত্রী রাজনাথ সিং।

যদিও পাক অধিকৃত কাশ্মীর নিয়ে পাকিস্তানের সঙ্গে কথা বলতে পারে ভারত। অন্যদিকে, ভারতের সঙ্গে যুদ্ধের জন্য প্রস্তুত বলেছেন পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। মৃত্যু অবধি পাকিস্তান তাদের লড়াই চালিয়ে যাবে এমনটাই মনে করছে কূটনৈতিক মহল।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here