দ্য পিপল ডেস্ক : স্বপ্ন দেখতে ভালবাসত ছেলেটা, নিজেকে নিয়ে মেতে থাকত সবসময়। আজ সেই ছেলেটা নেই, এখনও মন থেকে মেনে নেওয়া যাচ্ছে না!


বান্দ্রার ফ্ল্যাটে সুশান্ত সিং রাজপুতের ৫৫ লাখের একটা টেলিস্কোপ ছিল, সেই টেলিস্কোপ দিয়ে চোখ রাখতেন চাঁদে।

দেখতেন নিজের জমি। হয়ত স্বপ্ন দেখতেন সেখানে যাবার! কিন্তু কি থেকে যে কি হয়ে গেল! এখনও মানতে পারছেন না সুশান্তের বাবা! সেই টেলিস্কোপে আজ আর কেউ চোখ রাখে না !


বলিউড খ্যাত অভিনেতা সুশান্ত সিং রাজপুতের অস্বাভাবিক মৃত্যুর পর জল ঘোলা হয়েছে অনেক। এ বিষয়ে টলি বলির প্রায় সবাই মুখ খুলেছেন। তাঁর ভক্তরাও ঝড় তুলে দিয়েছে সোশাল মিডিয়ায়।


কিন্তু মুখ খোলেননি সুশান্তের বাবা। ছেলের মৃত্যুর এত দিন পর আজ বাবা কে কে সিং সাংবাদিকদের সামনে মুখ খুললেন।


তিনি জানিয়েছেন, চাঁদে নিজের নামে জমি কিনেছিলেন সুশান্ত। ৫৫ লক্ষ টাকার ওই টেলিস্কোপ দিয়ে চাঁদের সেই জমি দেখাশোনা করতেন সুশান্ত।


তিনি আরও জানান, খুব কম বয়সেই ও অনেক কিছু করেছিল। অনেক কিছু করার স্বপ্নও দেখত ও। দুর্যোগের সময় অসম ও কেরল সরকারকে কয়েক কোটি টাকা দিয়ে সাহায্য করেছিল।

সবসময় দুঃস্থদের পাশে দাঁড়াত। চেষ্টা করত কীভাবে ভারতের ছেলে-মেয়েদের নাসায় পৌঁছানো যায়। কিন্তু সেসব স্বপ্ন হয়েই থেকে যাবে!


ছেলের বিয়ে নিয়ে জানতে চাওয়া হলে তিনি জানান, আগামি বছরের ফেব্রুয়ারি-মার্চ মাস নাগাদ বিয়ে করবে বলেছিল।

করোনা ভাইরাসের কারণে একটি ছবি মুক্তি পাওয়া আটকে ছিল। ওটা মুক্তি পেলেই বিয়ে করবে বলে ঠিক করেছিল সুশান্ত।


অন্যদিকে এর আগে সুশান্তের এক দাদা সংবাদমাধ্যমকে জানিয়েছিলেন চলতি বছরের নভেম্বর মাস নাগাদ সুশান্ত বিয়ে করবে বলে জানিয়েছিল। তবে পাত্রী কে? সে বিষয়ে তিনি কিছু জানাননি।