দ্য পিপল ডেস্কঃ ফুটবলের দুনিয়ায় নতুন মরশুম শুরু হয়ে গিয়েছে। নতুন মরশুমে জার্সি বদল করেছেন একাধিক খেলোয়াড়। প্লেয়ারদের ক্লাব বদলের পাশপাশি বদলে গিয়েছে ফ্যান সংখ্যাও। পছন্দের ক্লাবে পছন্দের খেলোয়াড়কে পেয়ে আপ্লুত অনেকেই। সব মিলিয়ে মরশুমের শুরুতেই জমজমাটি ইউরোপিয়ান ক্লাব ফুটবল।   

আমাদের WHATSAPP গ্রুপে যুক্ত হতে ক্লিক করুন: Whatsapp

 মরশুমের আগেই দলবদল করেছেন একাধিক তারকা খেলোয়াড় । দলবদল করেছেন অ্যান্টোনিও গ্রিজম্যান, লুকাকু, এডেন হ্যাজার্ড সহ অনেকেই।  

ফুটবল জগতের একাধিক জনপ্রিয় তারকা মেতেছে ক্লাব বদলের উৎসবে। দেখে নেওয়া যাক নতুন মরসুমে কোন ফুটবল তারকা কোন ক্লাবে গেলেন…

রমেলু লুকাকু

বেলজিয়ামের স্ট্রাইকার রোমেলু লুকাকু। চেলসিতে জায়গা না মেলায় লুকাকু চলে যান এভারটোনে। এভারটনে দুর্দান্ত খেলার কারণে অতিদ্রুতই ম্যানচেষ্টার ইউনাইটেড দলে জায়গা পান তিনি। ৮৫ মিলিয়ন ইউরোর বিনিময়ে এভারটনের কাছ থেকে ম্যনচেষ্টার কিনে নেয় লুকাকুকে।

গত মরশুমে লুকাকু ৪৫ টা ম্যাচে মাত্র ১৫ গোল করায় বেশ হতাশ হয় ম্যানচেষ্টার কর্তৃপক্ষ। নতুন মরসুমে জুভেন্তাস লুকাকুকে না কেনায় ৭০ মিলিয়নের বিনিময়ে লুকাকু চলে যান ইন্টার মিলানে। নতুন মরসুমে ইন্টার মিলানে কেমন খলেবে লুকাকু সেই দিকে তাকিয়ে তাঁর ভক্তরা।

জুনিয়র ফিরপো

২১ বছর বয়সী স্প্যানিশ লেফটব্যাক জুনিয়র ফিরপো। গত মরসুমে ন্যু ক্যাম্পে ৪-৩ গোলে হারায় বেটিস। সেদিনের ম্যাচে ফিরপোর চমকপ্রদ পারফরম্যান্স নজর কাড়ে ফুতবল বিশ্বের। বার্সালোনা তাদের দলে লেফটব্যাক হিসেবে ১৮ মিলিয়নের বিনিময়ে কেনেন ফিরপোকে।

লুকাস ডিনিয়াকে বার্সা ছাড়ার পর দলে প্রয়োজন ছিল লেফটব্যাকের।  সেই জায়গা পূরণ করতেই আনা হয়েছে ফিরপোকে। 

বেঞ্জামিন পাভার্ড

বিশ্বকাপ জয়ী দল ফ্রান্সের রাইটব্যাক খেলোয়াড় বেঞ্জামিন পাভার্ড। গত মরসুমে খেলেছেন স্টুটগার্টের হয়ে। নতুন মরসুমে বায়ার্ন মিউনিখ ৩৫ মিলিয়নের বিনিময়ে স্টুটগার্টের কাছ থকে কিনে নেন। বায়ার্নে রাইটব্যাকের দ্বায়িত্ব সালনাবেন ২৩ বছর বয়সী এই ফ্রান্স ফুটবলার।

বায়ার্নের রাইটব্যাক সামলেছেন জশুয়া কিমিচ। কিমিচ একজন সেন্ট্রাল মিডফিল্ডার। তবে বেঞ্জামিন পাভার্ড দলে আসায় ফের সেন্ট্রাল পজিশনে খেলতে পারবেন জশুয়া কিমিচ।  

কিয়েরন ট্রিপিয়ার

বর্তমানে বিশ্বের সবথেকে পারফেক্ট সেটপিস টেকারদের একজন কিয়েরন ট্রিপিয়ার। ইংল্যান্ডের জাতীয় দলের খেলোয়াড় বর্তমানে খেলবেন স্প্যানিশ ক্লাব অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদে। ১২ মিলিয়ানে দলে কিনে নেয় অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদ।সাধারণত ইংলিশ প্লেয়াররা ইংল্যান্ডে থাকতে বেশি পছন্দ করতেন। তবে ব্রিটেনের এই খেলোয়ার ইংল্যন্ড ছেড়ে বাইরের ক্লাবে খেলতে যাবে বলে শোনা যাচ্ছিল। সেই গুঞ্জন সত্যি করে মাদ্রিদে গেল ট্রিপিয়ার।

এডেন হ্যাজার্ড

বার বার শোনা গেছে বেলজিয়ামের স্ট্রাইকার হ্যাজার্ড রিয়েলে গেছে। সংবাদ মাধ্যমেও নিজে নানা উষ্কানিমূলক বার্তাও দিয়েছিলেন এই খেলোয়াড়। হ্যাজার্ডের স্বপ্ন ছিল রিয়ালে খেলা সেটা প্রায় সকলের জানা। সেই স্বপ্ন পূরণ হল নতুন মরসুমে।

১০০ মিলিয়নের বিনিময়ে চেলসির কাছে থেকে এডেন হ্যাজার্ডকে কেনে রিয়াল মাদ্রিদ।ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডো দল ছাড়ার পরে কোনও কাপ আসেনি রিয়ালের ঘরে। সেই কারণে বর্তমানে বিশ্বের সেরা প্লেয়ারকে হাতছাড়া না করে দলে কিনেই নেয় রিয়াল।