এই মৃত্যু উপত্যকা আমার দেশ নয়

0
89

।। জয় চ্যাটার্জী ।।

মঙ্গল ও বুধবার। বাঙালির আবেগ নিয়ে বিস্তর রাজনীতি দেখলাম। শুনলাম। এ বলে আমায় দেখ, ও বলে আমায়। কেউ ছবি দেখিয়ে। কেউ বা ভিডিও। প্রশ্ন হল সত্যটা কী?

“মূর্তি” আসলে একটা অবয়ব। কাল্পনিক বা বাস্তবিক। পৌত্তলিকদের কাছে মূর্তি আসলে ঈশ্বর ও মানুষের মধ্যে সংযোগ। তাই তো বৈদিক মতে ‘চক্ষু ও প্রাণ’ প্রতিষ্ঠা করতে হয় মূল আরাধনার আগে। মোদ্দা কথা বৈদিকদের ভাবনায় ওই মূর্তি হলো মানুষের সঙ্গে ‌টেলিফোনে যোগাযোগ মাত্র। ভালো!

তাই তো‌ নয়ের দশকে রাশিয়ায় লেনিনের মূর্তি ভাঙার পর  কিংবা বামিয়ানে বুদ্ধমূর্তি ভাঙার পর যতো না প্রতিবাদ দেখেছি তার অনেক বেশি বুধবার দেখতে পেলাম হয়তো।

গোড়ায় ঠিক ছিলো। তারপর কেনো সব বদলালো বুঝলাম না।

গত ২৪ ঘন্টার মধ্যে কী‌ প্রশ্ন উঠবে না,

কারা ভাঙলো?

অবাঙালি তর্কে কারা?

সিসি টিভি ফুটেজ কোথায়?

ছ’টা দফার পর এখন কেনো প্রতিরোধ?

—ভাই। আপনি যেঁ বা যাঁরাই হোন দয়া করে বেসাতি করবেন না। কারণ,

এই মৃত্যু উপত্যকা আমার দেশ নয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here