দ্য পিপল ডেস্কঃ কলকাতার দুই ফুটবল জায়েন্ট ইস্টবেঙ্গল ও মোহনবাগান সহ মোট ১২টি ক্লাবের এএফসি এবং জাতীয় দলের জন্য লাইসেন্সের আবেদন খারিজ করল অল ইন্ডিয়া ফুটবল ফেডারেশন। তার মধ্যে ৭টি আইলিগের দল ও ৫টি আইএসএলের দলের লাইসেন্সের আবেদন বাতিল করা হয়েছে।

      গত বৃহস্পতিবার নয়া ২০১৯-২০ মরশুমের জন্য আবেদনকারী ১৯টি দলের তালিকা প্রকাশ করল এআইএফএফ। এবারে মোট ১১টি আইএসএল ও ৮টি আইলিগের দল এএফসি এবং জাতীয় ক্লাবের জন্য আবেদন করেন।

 অল ইন্ডিয়া ফুটবল ফেডারেশনের ক্লাব লাইসেন্স কমিটির প্রকাশিত লাইসেন্স বাতিল ক্লাবের নাম-

আই লিগ- মোহনবাগান, ইস্টবেঙ্গল, আইজল এফসি, নেরোকা এফসি, মিনার্ভা পাঞ্জাব, চার্চিল ব্রাদার্স, গোকুলাম কেরালা এফসি।

আই এস এল- নর্থইস্ট ইউনাইটেড এফসি, ওড়িশা এফসি, কেরালা ব্লাস্টার্স, পুণে সিটি এফসি ও মুম্বই সিটি এফসি।

 যে সমস্ত ক্লাবের এএফসি ও জাতীয় ক্লাবের লাইসেন্স মঞ্জুর করা হয়েছে- চেন্নাইয়ান এফসি, বেঙ্গালুরু এফসি, জামশেদপুর, গোয়া এবং এটিকে। একমাত্র আই লিগের দল স্থান পেয়েছে চ্যাম্পিয়ন চেন্নাই সিটি এস সি।

আগামী ১৬ অক্টোবর পর্যন্ত লাইসেন্স বাতিল হওয়া ক্লাবগুলিকে সময় দিয়েছে ভারতীয় ফুটবল ফেডারেশন। তাদের পুরানো সমস্ত ত্রুটি পূরণ করে পুনরায় জাতীয় প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহনের জন্য লাইসেন্সের আবেদন করতে পারবে দলগুলি।

ইন্ডিয়ান ক্লাব লাইসেন্সিং নিয়মানুযায়ী, ভারতের বড় প্রতিযোগীতায় অংশগ্রহণের জন্য দলগুলিকে এএফসির লাইসেন্স প্রাপ্ত হতে হবে। এজন্য এএফসি অনলাইন ক্লাব লাইসেন্সিং পোর্টাল- AFC CLAS আবেদন করতে হবে।

অল ইন্ডিয়া ফুটবল ফেডারেশনের নিয়মানুযায়ী, এএফসি লাইসেন্স ছাড়া কোনও দল এএফসি কাপ বা এশিয়ান চ্যাম্পিয়ন লিগে অংশগ্রহণ করতে পারবে না। কিন্তু জাতীয় লাইসেন্স ছাড়াও আই লিগ, আইএসএল ও সুপার কাপের মতো প্রতিযোগীতায় অংশগ্রহণে দলগুলিকে ছাড় দেওয়া হয়।   

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here