দ্য পিপল ডেস্কঃ সংক্রমণ প্রতিরোধ করতে সপ্তাহে দুদিন সম্পূর্ণ লকডাউন ঘোষণা করেছিল রাজ্য সরকার।

সেই নিয়ম মেনে বুধবার রাজ্যজুড়ে পালন হচ্ছে সম্পূর্ণ লকডাউন। জুলাই মাসের এটাই শেষ লকডাউন। তাই এদিন সকাল থেকেই তৎপর পুলিশ।

করোনা সংক্রমণের শৃঙ্খলকে ভাঙাই প্রধান লক্ষ্য নবান্নের। জরুরি পরিষেবা বাদ দিয়ে বাকি সব পরিষেবা বন্ধ এদিন।

দোকান বাজার থেকে শুরু করে সরকারি-বেসরকারি অফিস, যানবাহন সবকিছুই স্তব্ধ। পাশাপাশি উড়বে না আন্তঃরাজ্য কোনও বিমান।

গত সপ্তাহে বৃহস্পতিবার ও শনিবার গোটা রাজ্যে পালন করা হয়েছিল লকডাউন। সেই দিনের মত আজ বুধবারও কড়া পুলিশি পাহারায় রাজ্য স্তব্ধ।

কলকাতা শহর থেকে রাজ্যের প্রতিটি জেলায় সক্রিয় পুলিশ। সূত্রের খবর, প্রতিটি জেলার পুলিশ প্রশাসনকে কড়া নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

কেউ নিয়ম না মেনে বাইরে বের হলেই দিতে হবে কড়া দাওয়াই। অভিযুক্ত ব্যক্তির বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়ার কথাও বলা হয়েছে।

একান্তই বাইরে বের হলে উপযুক্ত নথিপত্র সঙ্গে নিয়ে বের হতে হবে। এদিন পাইকারি মার্কেটে জনশূন্যতা চোখে পড়লো।

অন্যান্য দিন এই এলাকায় যে পরিমাণ ভিড় হয় আজ তার ছিটেফোঁটাও নেই। গোলপার্ক এলাকায় গার্ডরেল ফেলে চলছে পুলিশি নজরদারি।

বিধাননগর পুলিশ কমিশনার এর পক্ষ থেকে এদিন সকালে লেকটাউন এলাকায় পুলিশকে অত্যন্ত তৎপর দেখা যায়।

শুধু তাই নয় বিধাননগরের কনটেইনমেন্ট এলাকায় পরিদর্শন করেন বিধান নগর ডিজি সূর্য প্রতাপ যাদব।

এলাকায় লকডাউন ঠিকমতো পালন হচ্ছে কিনা তা খতিয়ে দেখেন তিনি। পাশাপাশি হাওড়া ব্রিজ এলাকায় ড্রোন উড়িয়ে চলছে পুলিশি নজরদারি।