দ্য পিপল ডেস্কঃ পূর্ব মেদিনীপুরে প্রশাসনিক বৈঠক সেরে কলকাতা ফেরার পথে দিঘার কাছে স্থানীয় এক চায়ের দোকানে ঢুকে পড়েন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যাপাধ্যায়। নিজের হাতে চা বানিয়ে মুখ্যমন্ত্রী পরিবেশন করেন মুখ্য সচিব, স্বরাষ্ট্র সচিব সহ অন্যান্য নেতা-কর্মীদের। যা ইতিমধ্যে ভাইরাল হয়েছে সোশাল মিডিয়ায়।

তবে মুখ্যমন্ত্রীর চা বানানো নিয়ে কটাক্ষ করতে ছাড়েননি লোকসভায় কংগ্রেসের পরিষদীয় দলনেতা অধীর রঞ্জন চৌধুরি।

অধীর বলেন, প্রধানমন্ত্রীও বলেছিলেন তিনি চা বিক্রেতা ছিলেন। আমার রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীও প্রধানমন্ত্রীকে নকল করে সেই চায়ের পথেই হাঁটলেন।

অধীর বলেন, এ রাজ্যে শিক্ষকদের উপর আক্রমণ শানানো হচ্ছে, গণতান্ত্রিক আন্দোলনের উপর বারবার আঘাত করছে বর্তমান সরকার। একদিকে শিক্ষকরা আক্রান্ত হচ্ছে অন্যদিকে ডেঙ্গির প্রভাব বাড়ছে। কোনো ক্ষেত্রেই সফল নন বাংলার মুখ্যমন্ত্রী। এটা বাংলার পক্ষে লজ্জার।

উল্লেখ্য, ২০২১ এর বিধানসভা ভোট নিয়ে কোমর বেঁধে পথে নামছে সব রাজনৈতিক দল। জনসংযোগ রক্ষার জন্য দিদিকে বলে সহ একাধিক কর্মসূচি নিয়েছে তৃণমূল। পাল্টা জবাবে বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষও চা চক্রের ডাক দিয়েছেন।

অন্যদিকে, প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী পি চিদম্বরমের গ্রেফতারিতে বেস বিপাকে পড়েছে কংগ্রেস। এ রাজ্যে কংগ্রেস প্রায় অস্তমিত হলেও কটাক্ষ করতে ছাড়ছেন না অধীর চৌধুরি। স্বভাবসিদ্ধ ভঙ্গিতেই আক্রমণ শানিয়ে চলেছেন তিনি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here