মারাঠা বনাম আফগান
মারাঠা বনাম আফগান লড়াই, শীতেই আসছে ‘পানিপথ’

দ্য পিপল ডেস্কঃ বলিউডে পিরিয়ডিক ছবির এক্সপেরিমেন্ট করাটা ভীষণভাবে চ্যালেঞ্জিং ব্যাপার। তবে ভিএফএক্সের দৌলতে ইদানিং সেটা অনেকটা সহজ হয়েছে। কিন্তু গল্পের সঙ্গে সামঞ্জস্য রেখে ‘লার্জার দ্যান লাইফ’ চরিত্রগুলিকে সুনিপুণভাবে ফুটিয়ে তোলা বেশ কষ্টসাধ্য ব্যাপার।

এরকমই চ্যালেঞ্জিং গল্প আবারও অ্যাকসেপ্ট করলেন পরিচালক আশুতোষ গোয়ারিকর। ‘যোদ্ধা আকবর’, ‘মহেঞ্জোদারো’র পর এবার মুক্তি পেল আশুতোষ গোয়ারিকর পরিচালিত মারাঠা বনাম আফগান লড়াই অবলম্বনে ‘পানিপথ’ ছবির ট্রেলর।

আরও পড়ুনঃ “পতি পত্নী অউর উয়ো” জল্পনা শিরোনামে

সঞ্জয় দত্ত, অর্জুন কাপুর এবং কৃতী সানোন অভিনীত ‘পানিপথ’ ছবিতে তৃতীয় পানিপথের যুদ্ধের গল্প তুলে ধরেছেন পরিচালক আশুতোষ গোয়ারিকর। ছবির অন্যান্য চরিত্রে অভিনয় করেছেন পাদ্মিনী কোলাপুরী, মনিশ বহাল, কুণাল কাপুর এবং সুহাসিনী মুলে।

ট্রেলরের দেখানো হয়েছে একে একে হিন্দুস্থানের দখল করতে মরিয়া হয়ে উঠেছে মারাঠা ।মারাঠা শক্তিকে কিভাবে পরাজিত করা যায়? তা নিয়ে রণনীতি শুরু করে আফগানরা। মারাঠা দখলের দায়িত্ব পড়ে আহমেদ শাহ আবদালির (সঞ্জয় দত্ত) ওপর।

অন্যদিকে সেই সময় মারাঠা সাম্রাজ্যের দায়িত্ব বর্তায় সদাশিব রাও ভাউ (অর্জুন কাপুর) এর ওপর। মারাঠা সাম্রাজ্যের অন্যতম শক্তিশালী যোদ্ধা পেশোয়া বাজিরাওয়ের ভাইপো এবং চিমাজি আপ্পার পুত্র সদাশিব।মারাঠা সাম্রাজ্যের ওপর অতর্কিত হামলা চালায় শাহ আবদালি। শুরু হয় মারাঠা বনাম আফগান এর তৃতীয় পানিপথের যুদ্ধ।

আরও পড়ুনঃ “লাইফ রিস্ক পে লাগা দি আপসে মিলনে কে লিয়ে”

ট্রেলর মুক্তির পর থেকেই ছবিটি নিয়ে আলোচনা শুরু করেছেন ফিল্ম ক্রিটিকসরা। ‘বাজিরাও মাস্তানি’ এবং ‘পদ্মাবতী’ মিশেলে তৈরি হয়েছে এই ছবি। যদিও কাহিনীতে আফগান এবং মারাঠা গল্পের মিশ্রণ রয়েছে এমনটাই মনে করা হচ্ছে।

তবে দর্শকদের মধ্যে কতটা ছাপ ফেলতে পারে এই ছবি। তার জন্য অপেক্ষা করতেই হবে ৬ ডিসেম্বর অবধি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here